Finance News

New UPI Rule: GPay, PhonePe সংক্রান্ত বড় খবর, লেনদেনের নিয়মে ব্যাপক পরিবর্তন

UPI পেমেন্ট সিস্টেম আরো নিরাপত্তা পূর্ন করতে নতুন নিয়ম আনছে সরকার।

New UPI Rule: UPI পেমেন্টের ক্ষেত্রে জালিয়াতি বাড়ছে। অনেকে হাজার হাজার টাকার ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন। এমন পরিস্থিতিতে ডিজিটাল পেমেন্টের ক্ষেত্রে একটা বড় পরিবর্তন আসছে। এ সিদ্ধান্ত নিতে যাচ্ছে অর্থ মন্ত্রণালয়।

ফলে পেমেন্ট গ্রহণ ও পেমেন্ট করার নিয়মে পরিবর্তন আসতে চলেছে। অর্থ মন্ত্রক সূত্রে জানা গিয়েছে, ৫ হাজার টাকার বেশি ডিজিটাল পেমেন্ট করলে আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলিকে সতর্ক করা হবে। তিনি যে ব্যাঙ্কের গ্রাহক সেই ব্যাঙ্কই এই সতর্কতা দিতে পারে।

একজন সরকারি কর্মকর্তা বলেন, ‘এই নিয়ম শুধুমাত্র নতুন ব্যবহারকারী বা বিক্রেতাদের জন্য প্রযোজ্য হবে যদি তারা এই পরিমাণ অর্থ প্রদান করে।’ যাইহোক, অন্য একটি সূত্র দাবি করেছে যে প্রাথমিকভাবে এই অর্থ প্রদান নীতি নতুন গ্রাহকদের জন্য কার্যকর হলেও, ভবিষ্যতে এই নিয়ম প্রতিটি গ্রাহকের জন্য অনুসরণ করতে হতে পারে।

উদাহরণস্বরূপ, যদি কেউ জয়পুরে থাকেন এবং UPI-এর মতো রিয়েল-টাইম পেমেন্ট সিস্টেম ব্যবহার করে ৫,০০০ টাকার বেশি লেনদেন করেন, তাহলে ব্যাঙ্ক থেকে একটি ফোন কল বা বার্তা সেই ব্যক্তির কাছে যেতে পারে। টাকা ওই ব্যক্তি দিয়েছেন কি না তা সংশ্লিষ্ট ব্যক্তির কাছ থেকে জানা হতে পারে।

জানা গেছে, ইতোমধ্যে অনেক আর্থিক প্রতিষ্ঠান এই প্রক্রিয়া শুরু করেছে। এই নিয়ম উচ্চ-মূল্যের ডেবিট এবং ক্রেডিট লেনদেনের জন্য প্রয়োগ করা হয়। এর আগে খবর এসেছিল যে UPI-এর মাধ্যমে বড় অঙ্কের লেনদেনের জন্য সরকার ৪ ঘন্টা সময়সীমা নির্ধারণ করতে চলেছে। সেই ৪ ঘন্টা সময়ের মধ্যে টাকা পাঠানোর পরেও এটি তোলা যাবে। কিন্তু এখন এই নতুন UPI পেমেন্ট নীতি কার্যকর করা হতে পারে।

সূত্রের দাবি, চার ঘণ্টা সময় বেঁধে যে নীতিমালা করা হয়েছিল, তাতে অনেক ক্রেতা পাওয়া যায়নি। ফলে যে উদ্দেশ্যে এই নিয়ম করা হয়েছিল তা বাস্তবায়ন করা যায়নি। যার কারণে ৫ হাজার টাকা প্রদানের একটি নতুন নীতি কার্যকর করা হতে পারে।

ডিজিটাল লেনদেনে আরও স্বচ্ছতা আনতে এবং দুর্নীতি রুখতে কাজ শুরু করেছে কেন্দ্রীয় সরকার। এটি নিশ্চিত করার জন্য যে, যে সকল ব্যবহারকারী ডিজিটালভাবে লেনদেন করে তারা যাতে স্প্যাম কলের শিকার না হয়।

Join Telegram groupJoin Now
Join WhatsApp ChannelJoin Now

Related Articles

Back to top button