News

Primary TET: মোবাইল নিয়ে পরীক্ষার হলে গ্রেফতার চার, প্রাথমিক টেট পরীক্ষায় চাঞ্চল্য

প্রাথমিক টেট পরীক্ষায় মোবাইল নিয়ে অসদুপায় অবলম্বনের অভিযোগে চারজনকে আটক করা হয়েছে।

Primary TET: প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের দাবি, প্রাথমিক TET পরীক্ষা রাজ্য জুড়ে বেশ সফল পরিচালিত হয়েছে। এর মধ্যেই মোবাইল নিয়ে চার পরীক্ষার্থী ধরা পড়ল। পরীক্ষার পর বোর্ডের উপসচিব পার্থ কর্মকার সাংবাদিক সম্মেলনে জানান, ৩ লক্ষ ১০ হাজার আবেদনকারীর মধ্যে ২ লাখ ৭২ হাজার ৬৩৯ জন TET পরীক্ষায় অংশ নেন। উপস্থিতির হার ৮৮.২২ শতাংশ। সবচেয়ে বেশি উপস্থিতির হার দক্ষিণ দিনাজপুরে (৯১.৯১ শতাংশ)।

প্রাথমিক টেট পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বনের অভিযোগে চারজনকে আটক করা হয়েছে। মানিকচকে টেট পরীক্ষা কেন্দ্রে মোবাইল ফোনসহ ধরা পড়ল চার পরীক্ষার্থী। মানিকচক ব্লকের ইনায়েতপুর হাইস্কুল কেন্দ্রের ঘটনা। জানা গেছে, পরীক্ষা শুরুর ৪৫ মিনিটের মধ্যেই চার পরীক্ষার্থীকে নিয়ে সন্দেহ হয় পরিদর্শকদের। তল্লাশি করে দেখা যায় তাদের কাছে মোবাইল ফোন রয়েছে। তাৎক্ষণিকভাবে কেন্দ্রের বাইরে কর্তব্যরত পুলিশ কর্মকর্তাদের খবর দেওয়া হয়।

বিপুল মন্ডল, বেঞ্জামিন চিশতী, বাসুদেব মন্ডল ও বাসুদেব চিশতী নামে চার প্রার্থীকে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়। এ ঘটনায় ইনায়েতপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে মানিকচক থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। মানিকচক থানার আইসি পার্থসারথি হালদার জানান, ধরা পড়া চার পরীক্ষার্থীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

এত কিছু সতর্কতা অবলম্বনের পরও পর্ষদের মুখ পুড়েছে। পরীক্ষা শুরু হওয়ার এক ঘণ্টার মধ্যেই টেটের প্রশ্নপত্র ফেসবুকে ভাইরাল হয়ে যায়। পরীক্ষা শেষ হওয়ার পর দেখা গেছে, প্রশ্নপত্র মিলে গেছে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ (WBBPE)। তবে তাদের মতে, এ ঘটনায় কোনো প্রার্থী বাড়তি সুবিধা পেতে পারেননি। কারণ ‘প্রশ্ন ফাঁসের’ সময় তারা পরীক্ষা কেন্দ্রে ছিলেন। ঘটনার ব্যাখ্যা চেয়ে শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসু পর্ষদের কাছে জানতে চেয়েছেন।

Join Telegram groupJoin Now
Join WhatsApp ChannelJoin Now

Related Articles

Back to top button